সীমান্তে আবারও গুলিবিদ্ধ হয়ে যুবক নিহত

রাজশাহীর সীমান্ত থেকে এক বাংলাদেশী যুবকের গুলিবিদ্ধ মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। পবা উপজেলার চর মাঝাড়দিয়াড়ের হারুমণ্ডলের পাড়া সংলগ্ন সীমান্ত এলাকা থেকে বুধবার ( ২৭ অক্টোবর) সকালে গ্রামবাসী ওই যুবকের গুলিবিদ্ধ মরদেহটি দেখতে পান। পরবর্তীতে বিজিবি সদস্যরা ওই যুবকের মরদেহ নিজেদের হেফাজতে রাখে।

পবার হরিপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান বজলে রেজবী আল হাসান মুঞ্জিল এ তথ্য নিশ্চিত করে জানান, নিহত যুবকের নাম মিঠুন (২৫)। তিনি ওই এলাকার মনজুর হোসেনের ছেলে। মিঠুন একজন কৃষক ছিলেন।

তবে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশের (বিজিবি) রাজশাহীর ১ ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল সাব্বির আহমেদ জানান, মিঠুন চরে মোটরসাইকেলের রাইডার ছিলেন। ভারতীয় সীমান্ত থেকে প্রায় ২০০ গজ বাংলাদেশের ভেতরে মিঠুনের মরদেহ পড়ে ছিল।

ধারণা করা হচ্ছে, ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনীর (বিএসএফ) গুলিতে তার মৃত্যু হয়েছে। মরদেহ উদ্ধারের জন্য বিষয়টি পুলিশকে জানানো হয়েছে।

রাজশাহীর দামকুড়া থানার ওসি মাহবুব হোসেন বলেন, কে গুলি করেছে তা এখনই বলতে পারছি না। মরদেহটি এখন বিজিবির হেফাজতে আছে। পুলিশ রওনা হয়েছে। সুরতহাল প্রতিবেদন প্রস্তুতের পর মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য রাজশাহী মেডিকেল কলেজের মর্গে পাঠানো হবে।

মাহাবুল ইসলাম/বার্তা বাজার/এসজে

বার্তা বাজার .কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো