বিএনপির সম্মেলন পণ্ড: ব্যালট বাক্স ছিনতাই-ভোট জালিয়াতির অভিযোগ

সিলেটের বিয়ানীবাজারে ব্যালট বাক্স ছিনতাই ও ভোট জালিয়াতির অভিযোগে দুই পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষে পণ্ড হয়েছে পৌর বিএনপি’র দ্বি-বার্ষিক সম্মেলন।

শনিবার (৬ নভেম্বর) সকালে পৌর শহরের একটি কমিউনিটি সেন্টারে আলোচনা সভা শেষে দুপুর দেড়টার দিকে শুরু হয় কাউন্সিল। ভোটগ্রহণ প্রায় ৭০ শতাংশ শেষ হওয়ার ঠিক সেই মুহূর্তে দুটি পক্ষের সমর্থকদের সংঘর্ষ বাকবিতণ্ডা, হাতাহাতি থেকে চেয়ার ছুড়াছুঁড়িতে গড়ায়। এতে সম্মেলনের দুইজন সাধারণ ভোটারও আহত হয়েছেন।

এসময় সম্মেলনে উপস্থিত থাকা কেন্দ্রীয় ও সিলেট জেলা বিএনপি’র নেতৃবৃন্দরা সম্মেলন স্থগিত ঘোষণা করে চলে যান।

জানা যায়, সম্মেলনের আগেই বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় সভাপতি পদে নির্বাচিত হন সভাপতি প্রার্থী মিজানুর রহমান রুমেল।

সম্মেলনের প্রধান নির্বাচন কমিশনার আবু নাসের পিন্টু বলেন, সংঘর্ষ নয়, দুইটি পক্ষের মধ্যে বাকবিতণ্ডার ঘটনা ঘটেছে। ভোটারদের মধ্যে ঠেলাঠেলির ঘটনায় সম্মেলনের স্বাভাবিক পরিস্থিতিতে কিছুটা বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি হয়। সেজন্য কেন্দ্রীয় ও জেলা নেতৃবৃন্দরা সম্মেলন স্থগিত ঘোষণা করেছেন।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক কাউন্সিলের কয়েকজন ভোটার জানান, কাউন্সিল চলাকালে নির্বাচন কমিশনের অব্যবস্থাপনা, অদক্ষ এজেন্ট, কাউন্সিলরদের আইডি কার্ড না থাকার সুযোগে একটি পক্ষ নামে বেনামে ভোট প্রদান শুরু করলে সংঘর্ষ বাঁধে। এক পর্যায়ে ব্যালট বাক্স ছিনতাই এবং দুই পক্ষের নেতাকর্মীরা চেয়ার ছোড়াছুড়ি করেন। পরে পরিস্থিতি অনুকূলে না থাকায় সিলেট জেলা বিএনপি’র নেতৃবৃন্দরা সম্মেলন স্থগিত ঘোষণা করেন সম্মেলন স্থল ত্যাগ করেন।

সম্মেলনের নির্বাচন কমিশন সূত্রে জানা গেছে, বিয়ানীবাজার পৌর বিএনপি’র সভাপতি পদে একমাত্র প্রার্থী ছিলেন মিজানুর রহমান রুমেল। সম্মেলনের আগেই তিনি বিনাপ্রতিদ্বন্দীতায় নির্বাচিত হয়েছেন। এছাড়া সম্মেলনে সহ সভাপতি পদে কবির আহমদ ও আতাউর রহমান কটন, সাধারণ সম্পাদক পদে জসিম উদ্দিন জুয়েল ও গিয়াস উদ্দিন, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক পদে নজমুল হোসেন ও এমদাদুল হক ইমন, সাংগঠনিক সম্পাদক পদে তাজ উদ্দিন কুটি ও কামাল উদ্দিন প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেন।

এর আগে সকালে পৌর বিএনপি’র দ্বিবার্ষিক সম্মেলন উদ্বোধন করেন সিলেট জেলা বিএনপি’র আহবায়ক কামরুল হুদা জায়গিরদার। উদ্বোধন শেষে প্রথম অধিবেশনে পৌর বিএনপি’র আহবায়ক নুরুল হুদার সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি ছিলেন কেন্দ্রীয় বিএনপি’র সাংগঠনিক সম্পাদক ডা. শাখাওয়াত হোসেন জীবন।

কাউন্সিলর মিছবা উদ্দিন ও পৌর বিএনপির সাবেক সভাপতি আবু নাসের পিন্টুর পরিচালনায় সম্মেলনে বিশেষ অতিথি ছিলেন- কেন্দ্রীয় সহ সাংগঠনিক সম্পাদক কলিম উদ্দিন মিলন, কেন্দ্রীয় বিএনপির সদস্য আবুল কাহের চৌধুরী শামীম, কাইয়ুম চৌধুরী, সামিয়া চৌধুরী, আব্দুল মান্নান, ফয়ছল আহমদ চৌধুরী প্রমুখ।

এদিকে গোলাপগঞ্জ উপজেলায় বিকাল থেকে পৌর বিএনপি সম্মেলন শুরু হয়েছে। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত নেতৃবৃন্দরা বক্তব্য রাখছেন।

ফাহিম আহমেদ/বার্তা বাজার/এসজে

বার্তা বাজার .কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
তুমি এটাও পছন্দ করতে পারো